| | বুধবার, ৮ই বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ৮ই রমজান, ১৪৪২ হিজরি |

করোনা শনাক্তে নতুন রেকর্ড ভারতের

প্রকাশিতঃ ৪:৩৩ অপরাহ্ণ | এপ্রিল ০৭, ২০২১

somoy news

নিজস্ব প্রতিবেদক : ভারতে ২৪ ঘন্টায় করোনা ভাইরাসে সর্বোচ্চ সংখ্যক রোগী শনাক্ত হয়েছে। মঙ্গলবার দেশটিতে এক লাখ সাত হাজার জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। যা এক দিনের হিসাবে দেশটিতে রেকর্ড। এর আগে রোববার দেশটিতে শনাক্তের পরিমাণ লাখ ছাড়িয়েছিল।

মঙ্গলবার দেশটির রাজধানী দিল্লিতে নতুন করে পাঁচ হাজার একশ জন শনাক্ত হয়েছে। যা একদিনের হিসাবে সর্বোচ্চ। চলমান করোনা প্রাদুর্ভাবের কারণে জারি করা রাত্রিকালীন কারফিউ আরোপের মধ্যে নতুন করে এ পরিমাণ শনাক্ত হলো। আগামী ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত রাত ১০টা থেকে ভোর ৫টা পর্যন্ত সেখানে এই কারফিউ কার্যকর থাকবে।

গত বছরের তুলনায় ভারতে দ্রুত করোনা ছড়িয়ে পড়ছে সতর্ক করে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষ বর্ধন বলেন, ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে মাস্ক পরিধানের ব্যাপারে মানুষের অনীহা পরিলক্ষিত হচ্ছে, মানুষ এগুলো (স্বাস্থ্যবিধি) ‘তিলাঞ্জলি’ (পরিত্যাগ করা) দিয়েছেন।

নীতি আয়োগের সদস্য (স্বাস্থ্য) ডা. ভি কে পল বলেন, দেশে মহামারি পরিস্থিতি ক্রমশ ভয়াবহ হচ্ছে। সংক্রমণ আরও বাড়ছে। জনসংখ্যার বড় অংশ এখনও করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। প্রথম দফার তুলনায় এবার সংক্রমণের গতি আরও বেশি।

তিনি আরও বলেন, দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলায় জনগণের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণ জরুরি। আগামী চার সপ্তাহ পরিস্থিতি খুবই ভয়াবহ হতে চলেছে। সংক্রমণ ঠেকাতে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ ভাবে সচেষ্ট হতে হবে। সময়ের সঙ্গে সঙ্গে মহামারির তীব্রতা বাড়ছে। দ্রুতগতিতে সংক্রমণ ছড়াচ্ছে। মোটের ওপর দেশজুড়েই এই পরিস্থিতি।

মাস্ক পরা, সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার মতো স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার পাশাপাশি রাজ্যে রাজ্যে করোনা চিকিৎসা অবকাঠামো আরও উন্নত করা এবং টিকাদান কর্মসূচি জোরদার করার কথাও জানান তিনি।

এদিকে, সব বয়সী মানুষের টিকাদানের ব্যাপারে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় প্রস্তুতি নিচ্ছে। সম্প্রতি ১৮ বছরের বেশি বয়সীদের টিকাদানের ব্যাপারে ইতিবাচক দৃষ্টিভঙ্গি প্রকাশ করেছে তারা। বর্তমানে ভারতে ৪৫ বছরের বেশি বয়সীদের মধ্যে কেবল এই ভ্যাকসিন গ্রহণের অনুমতি রয়েছে।

Matched Content

সময় নিউজ ডট নেট এর কোনো সংবাদ,তথ্য,ছবি,আলোকচত্রি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে র্পূব অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সর্ম্পূণ বেআইনি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যে কোন কমেন্সের জন্য কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।


Shares