| | বৃহস্পতিবার, ৯ই বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ৯ই রমজান, ১৪৪২ হিজরি |

রমজানের আগেই কমলা-মাল্টার দাম বাড়ছে

প্রকাশিতঃ ৬:১০ অপরাহ্ণ | মার্চ ১৯, ২০২১

somoy news

সময় নিউজ ডেস্ক :রমজানের আগেই কমলা ও মাল্টার দাম বাড়তে শুরু করেছে বাজারে। ঋতু পরিবর্তনের কথা বলে খুচরা পর্যায়ে ব্যবসায়ীরা কমলার দাম বাড়াতে শুরু করেছেন। কমলার দাম বাড়ানোয় মাল্টা এবং দেখতে কমলার মত ফল কিনুর দাম বাড়তে শুরু করেছে।

আড়ৎদার ও ফল আমদানিকারকরা বলছেন, ভারতের নাগপুর থেকে আগামী ২৫ মার্চের পর আর কোনো কমলা আসবে না। কারণ কমলার ঋতু শেষ। বাকি যা থাকবে তা নিজেদের জন্য রেখে দেবে ভারত সরকার। ফলে নতুন করে কমলার আমদানি হবে না। অর্থাৎ ঠিক রমজানের আগেই কমলা আমদানি বন্ধ হবে। আর আমদানি বন্ধ হলে বাজারে দাম বাড়তে শুরু করবে।

ব্যবসায়ীরা বলছেন, দেশের চাহিদার ৮৫ থেকে ৯০ শতাংশ কমলা ভারত ও নেপাল থেকে আমদানি করা হয়। এর মধ্যে ভারত থেকে ৬০ থেকে ৬৫ শতাংশ আমদানি করা হয় আর বাকি ১৫ থেকে ২০ ভাগ নেপাল ও চীন থেকে আমদানি করা হয়। আর বাংলাদেশের পাহাড়ি অঞ্চল অর্থাৎ চট্টগ্রাম, সিলেট এবং রাঙ্গামাটিতে চাষাবাদ হয় বাকি ১০ থেকে ১৫ শতাংশ কমলা। ফলে আমদানি কমে গেলে দাম বেড়ে যাবে।

দেশের সবচেয়ে বড় ফলের বাজার রাজধানীর বাদামতলী বাজারে গিয়ে দেখা গেছে, একের পর এক ট্রাকভর্তি কমলা, আপেল, আঙ্গুর বাজারে ঢুকছে। আর ট্রাকগুলোকে ঘিরে রাখছেন পাইকারি ও খুচরা ব্যবসায়ীরা। বাজারটিতে ২৮ কেজি ক্যারেটভর্তি ভালো মানের কমলা বিক্রি হচ্ছে ৩ হাজার থেকে ৩ হাজার ২০০ টাকায়। মাঝারি মানের কমলা বিক্রি হচ্ছে ২ হাজার ২০০ টাকা থেকে ২ হাজার ৪০০ টাকায়। রমজানের আগেই প্রতি ক্যারেটে ন্যূনতম ৫০০ টাকা করে বাড়বে বলে ধারণা করছেন ব্যবসায়ীরা।

রাজধানীর বাড্ডা, রামপুরা ও পল্টন এলাকায় ফলের দোকানগুলোতে দেখা গেছে, এক সপ্তাহ আগে কমলা ১২০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হতো। তবে এখন বিক্রি হচ্ছে ২০০ থেকে ২২০ টাকায়। দেখতে কমলার মতই কিনু ফল বিক্রি হচ্ছে ১৫০ টাকা কেজি দরে। অথচ এই কিনু গত সপ্তাহে বিক্রি হয়েছে ৮০ থেকে ৯০ টাকায়। কিনুর দামে বিক্রি হচ্ছে মাল্টাও। অর্থাৎ প্রতি কেজি মাল্টার দাম ১৫০ টাকা।

বাড্ডার ফল ব্যবসায়ী এনামুল হক বলেন, ঋতু শেষের কথা বলে কমলার দাম বাড়ানো হয়েছে। রমজানে কমলা কিনতে হবে ৩০০ টাকা কেজি দরে। কমলার দাম বাড়ায় পাল্লা দিয়ে বাড়ছে কিনু ও মাল্টার দাম। তবে তরমুজের দাম কমতে পারে।

Matched Content

সময় নিউজ ডট নেট এর কোনো সংবাদ,তথ্য,ছবি,আলোকচত্রি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে র্পূব অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সর্ম্পূণ বেআইনি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যে কোন কমেন্সের জন্য কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।


Shares